অনির্দিষ্টকালের জন্য ভার্চুয়াল আদালত চলতে পারে না : খন্দকার মাহবুব

0

কওমিকণ্ঠ ডেস্ক : ভার্চুয়াল আদালত ব্যবস্থা একটি অতি জরুরি বিধান। তাই অনির্দিষ্টকালের জন্য ভার্চুয়াল আদালত চলতে পারে না বলে মনে করেন বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান ও সুপ্রিম কোর্ট বারের সাবেক সভাপতি ও জ্যেষ্ঠ আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন।

মঙ্গলবার (৩০ জুন) রাজধানীর বসুন্ধরায় নিজ বাস ভবনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ দাবি জানান।

খন্দকার মাহবুব বলেন, ইতোমধ্যে সুরক্ষা নীতিমালা মেনে আদালতের স্বাভাবিক কার্যক্রম শুরু করার জন্য প্রধান বিচারপতিকে অনুরোধ জানিয়েছি। অনির্দিষ্টকালের জন্য ভার্চুয়াল আদালত চলতে পারে না। এটি একটি অতি জরুরি বিধান। এটা দীর্ঘ সময় ধরে চলতে পারে না। দেশের বিচার ব্যবস্থাকে স্বাভাবিক গতিতে চলতে না দিয়ে একদিকে যেমন বিচার প্রার্থী ও অপরদিকে আইনজীবীরা সংকটে পড়েছেন।’

তিনি বলেন, ‘ইতোমধ্যে হাইকোর্ট বিভাগে বিভিন্ন ধরনের মামলা পরিচালনার জন্য বেশ কয়েকটি বেঞ্চ গঠন করা হয়। এই সব বেঞ্চে শুধুমাত্র অতীব জরুরি মামলা গ্রহণ করার সিদ্ধান্ত হয়। করোনা মহামারির পূর্ব হতে হাইকোর্টের হাজার হাজার মামলা নিষ্পত্তির অপেক্ষায় ছিল এবং প্রতিদিন শত শত নতুন মামলা দায়ের হতো। ফলে আদালতের স্বাভাবিক বিচারকার্য বন্ধ হয়ে যাওয়ায় আইনজীবী ও বিচার প্রার্থীরা এক নিদারুণ অস্বাভাবিক পরিস্থিতির সম্মুখীন হয়, যা কিনা ইতোমধ্যে চরম আকার ধারণ করেছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘দেশে করোনা মহামারির কারণে গত ২৬ মার্চ সুপ্রিম কোর্ট বন্ধ ঘোষণা করা হয়। এর ফলে দেশে বিচার ব্যবস্থায় স্থবিরতা চলে আসে। এই পরিস্থিতিতে গত ১১ মে ভার্চুয়াল কোর্টের বিধান আসে, যার আওতায় আইনজীবীরা সংশ্লিষ্ট আদালতে অনলাইনের মাধ্যমে মামলা দাখিল করার নির্দেশনা পান।’

ভালো লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  

Comment

Share.